অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং এর চারটি আকর্ষনীয় দিকঃ যা আপনাকে মোটিভেট করবে

অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং এর চারটি আকর্ষনীয় দিকঃ যা আপনাকে মোটিভেট করবে

হেই কেমন আছেন সবাই, SoforAli.Com এ আবারো স্বাগতম সবাইকে। আজকের ব্লগ পোস্টের টপিক হচ্ছে অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং। আজকে কোন টিপস কিংবা ট্রিকস নিয়ে আলোচনা করব না, আজকে আলোচনা করব কিছু লোভনীয় 😀 ব্যাপার নিয়ে।

যা আপনাকে অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং শুরু করতে মোটিভেট করবে। তাহলে চলুন শুরু করা যাক।

১. প্যাসিভ ইনকাম

passive income

একটা Quote পড়েছিলাম অনেক দিন আগে, কথাটা এমন ছিল If you don’t find a way to make money while you sleep, you will work until you die. কথাটা বিখ্যাত ইনভেস্টর ওয়ারেন বাফেটের।

মানে হচ্ছে আমাদের এমন একটা আয়ের পন্থা খুজে বের করতে হবে, যার ফলে আমরা ঘুমিয়ে থাকলে ও আমাদের আয় হবে।

সহজ ইংরেজিতে সেটাকে বলে প্যাসিভ ইনকাম।

অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং হতে পারে আপনার প্যাসিভ ইনকামের অন্যতম মাধ্যম। আপনি যখন আপনার অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং বিজনেসকে দাড় করিয়ে ফেলবেন, তখন আপনাকে খুব বেশী কাজ কিংবা পরিশ্রম করতে হবে না সেটাকে কনটিনিউ করতে।

এমনকি যদি একেবারেই কাজ না ও করেন তবু ও অনেক সময় বছরের পর বছর আপনার ইনকাম জেনারেট হতে থাকবে।

 

২. লিমিটলেস আয়ের সম্ভাবনা

limitless earning

একটা নিশ সাইট কিংবা ব্লগ থেকে মাসে ৫০০ কিংবা ১০০০ ডলারই শুধু জেনারেট হয় না। আসলে সঠিক ভাবে মনিটাইজ করতে পারলে আয়ের কোন লিমিটেশন নেই। আপনাকে শুধু সঠিক ভাবে নিশ সাইট পরিচালনা করতে হবে।

এটা সময় সাপেক্ষ্য ব্যাপার কিন্তু অসম্ভব কোন কিছুই না, অনেকেই লাখ ডলার্স ইনকাম করছে ব্লগ এবং নিশ সাইট থেকে। ওই অবস্থানে যেতে হয়তো আপনার অনেক গুলো বছর লেগে যেতে পারে কিন্তু আপনি সঠিক ওয়েতে আগালে আপনার বিজনেস বাড়বেই মোটে ও কমবে না।

সো, একটা গন্ডির মধ্যে চিন্তা না করে বড় ভাবে চিন্তা করুন এবং সাইটকে অনেক বড় করার প্ল্যান করুন। আর্ন করে ইনভেস্ট করুন এবং সাইটের পরিসন বাড়ান।

 

৩. নিশ সাইট গ্রো করা এবং পরিচালনা করা আসলেই সহজ

নিশ সাইট বিল্ডিং মোটে ও কোন রকেট সায়েন্স নাহ। আপনি রাইট নাও এটাকে যতটা কঠিন ভাবছেন এটা মোটে ও ততোটা কঠিন নাহ।

১০-১৫ দিন এটা নিয়ে ঘাটাঘাটি করলেই সব বেসিক কনসেপ্ট ক্লিয়ার হয়ে যাবে, পরে যদি মনে করেন নিজে সাইট বানাতে পারবেন তাহলে নিজে বানাবেন নাহলে নিশ সাইট বিল্ডিং সার্ভিস কিনে নিবেন কোথা ও থেকে।

রেডিমেড সাইট কিনলে আপনি অনেক সিলি মিসটেক এবং কষ্ট থেকে বেচে যাবেন।

 

৪. মনিটাইজ করার অনেক প্লাটফর্ম রয়েছে

অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং এর জন্য আমার পছন্দের প্লাটফর্ম হচ্ছে Amazon Affiliate, ShareASale, and Commission Junction এই তিনটা।

এছাড়া ও আরো শত শত প্রোগ্রাম আছে যা আপনি এপ্লাই করতে পারেন আপনার সাইটে। আর সব নিশ রিলেটেড অ্যাফিলিয়েট প্রোগ্রামই রয়েছে ইন্টারনেটে। সো মনিটাইজেশন নিয়ে ও কোন চিন্তা করতে হবে না।

আপনাকে শুধু সাইটের অডিয়েন্স বাড়াতে হবে।

 

পড়ার জন্য সবাইকে ধন্যবাদ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *